• শিরোনাম


    বিশ্বনাথে খাজাঞ্চিতে কর্মহীন উলামাদের মাঝে সম্মাননা সহায়তা প্রদান

    আনহার বিন সাইদ | শনিবার, ২৮ আগস্ট ২০২১ | পড়া হয়েছে 86 বার

    সিলেট জেলা বিশ্বনাথ উপজেলায় বৈশ্বিক মহামারী করোনা ভাইরাস সংক্রমণ ও লকডাউনের কারণে কওমি উলামায়ে কেরাম সবচেয়ে বেশি সংকটাপন্ন। তাদের পরিবার/পরিজন নিয়ে রীতিমতো হিমশিম খাচ্ছেন। দীর্ঘ প্রায় দু'বছর যাবত কর্মক্ষেত্র থেকে তাঁরা বঞ্চিত। এহেন পরিস্থিতি বিবেচনায় সিরাতুন্নবী সা. পরিষদ খাজাঞ্চি ইউনিয়নে, স্থানীয় উলামায়ে কেরামদের মাঝে সম্মাননা সহায়তা প্রদান একটি প্রশংসনীয় পদক্ষেপ। গতকাল শুক্রবার (২৭আগষ্ট) সিলেটের বিশ্বনাথ উপজেলার খাজাঞ্চি ইউনিয়ন পরিষদ হলরুমে, বিকেল ৪ঘটিকায় অনুষ্ঠিতব্য অনুষ্ঠানে অতিথিরা উপরোক্ত কথাগুলো বলেন। সিরাতুন্নবী ...বিস্তারিত

    সিলেট জেলা বিশ্বনাথ উপজেলায় বৈশ্বিক মহামারী করোনা ভাইরাস সংক্রমণ ও লকডাউনের কারণে কওমি উলামায়ে কেরাম সবচেয়ে বেশি সংকটাপন্ন। তাদের পরিবার/পরিজন নিয়ে রীতিমতো হিমশিম খাচ্ছেন। দীর্ঘ প্রায় দু'বছর যাবত কর্মক্ষেত্র থেকে তাঁরা বঞ্চিত। এহেন পরিস্থিতি বিবেচনায় সিরাতুন্নবী সা. পরিষদ খাজাঞ্চি ইউনিয়নে, স্থানীয় উলামায়ে কেরামদের মাঝে সম্মাননা সহায়তা প্রদান একটি প্রশংসনীয় ...বিস্তারিত

    সিলেট জেলা বিশ্বনাথ উপজেলায় বৈশ্বিক মহামারী করোনা ভাইরাস সংক্রমণ ও লকডাউনের কারণে কওমি উলামায়ে কেরাম সবচেয়ে বেশি সংকটাপন্ন। তাদের ...বিস্তারিত

    আশুরার রোজার গুরুত্ব ও ফযিলত

    মুফতী মোহাম্মদ এনামুল হাসান | বুধবার, ১৮ আগস্ট ২০২১ | পড়া হয়েছে 125 বার

    মুহাররম মাসের দশ তারিখকে আশুরা বলা হয়। আশুরা আরবি শব্দ। যার শাব্দিক অর্থ দশম। অর্থাৎ মুহাররমের দশ তারিখ মুসলিম মিল্লাতের কাছে আশুরা হিসেবে পরিচিত। শুধু ইসলামের ইতিহাসে নই বরং গোটা দুনিয়ার ইতিহাসে মুহাররমের ১০ তারিখ অর্থাৎ আশুরার দিন অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ ও তাৎপর্যপূর্ণ বহন করে। আজকাল আমরা আশুরাকে নিজেদের মতো করে পালন করে থাকি। তা পালনে আমরা রাসুলুল্লাহ (সাঃ) ও সাহাবায়ে কেরামদের আদর্শ খেয়াল করিনা। হুজুর (সাঃ) আশুরার মূল্যায়ন কিভাবে করেছেন তা স্পষ্ট ...বিস্তারিত

    মুহাররম মাসের দশ তারিখকে আশুরা বলা হয়। আশুরা আরবি শব্দ। যার শাব্দিক অর্থ দশম। অর্থাৎ মুহাররমের দশ তারিখ মুসলিম মিল্লাতের কাছে আশুরা হিসেবে পরিচিত। শুধু ইসলামের ইতিহাসে নই বরং গোটা দুনিয়ার ইতিহাসে মুহাররমের ১০ তারিখ অর্থাৎ আশুরার দিন অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ ও তাৎপর্যপূর্ণ বহন করে। আজকাল আমরা আশুরাকে নিজেদের মতো করে পালন ...বিস্তারিত

    মুহাররম মাসের দশ তারিখকে আশুরা বলা হয়। আশুরা আরবি শব্দ। যার শাব্দিক অর্থ দশম। অর্থাৎ মুহাররমের দশ তারিখ মুসলিম মিল্লাতের ...বিস্তারিত

    হিজরি সন গণনার ইতিহাস [] এস এম শাহনূর

    | মঙ্গলবার, ১০ আগস্ট ২০২১ | পড়া হয়েছে 72 বার

    আগামীকাল ১১ আগস্ট ২০২১ বুধবার হিজরি ১৪৪৩ বর্ষের প্রথম দিন। খোশ আমদেদ পয়লা মহররম। খোশ আমদেদ হিজরি নববর্ষ। হৃদয়ের সব উষ্ণতা দিয়ে তাকে গ্রহণ করি। মানব সভ্যতার উন্মেষকাল থেকেই সময়, দিন, সপ্তাহ, পক্ষ, মাস, বছর প্রভূতি হিসাব নির্ণয় করার মননও সঞ্চারিত হয় এবং সেই মনন থেকে সূর্য পরিক্রমের হিসাবেরও যেমন উদ্ভব ঘটে, তেমনি চন্দ্র পরিক্রমেরও উদ্ভব ঘটে। সূর্য পরিক্রমের হিসাবে যে বছর গণনার পদ্ধতির উদ্ভব ঘটে তা সৌর সন ...বিস্তারিত

    আগামীকাল ১১ আগস্ট ২০২১ বুধবার হিজরি ১৪৪৩ বর্ষের প্রথম দিন। খোশ আমদেদ পয়লা মহররম। খোশ আমদেদ হিজরি নববর্ষ। হৃদয়ের সব উষ্ণতা দিয়ে তাকে গ্রহণ করি। মানব সভ্যতার উন্মেষকাল থেকেই সময়, দিন, সপ্তাহ, পক্ষ, মাস, বছর প্রভূতি হিসাব নির্ণয় করার মননও সঞ্চারিত হয় এবং সেই মনন থেকে সূর্য পরিক্রমের হিসাবেরও ...বিস্তারিত

    আগামীকাল ১১ আগস্ট ২০২১ বুধবার হিজরি ১৪৪৩ বর্ষের প্রথম দিন। খোশ আমদেদ পয়লা মহররম। খোশ আমদেদ হিজরি নববর্ষ। ...বিস্তারিত

    ২৩ জুন পলাশী দিবস”বিশ্বাস ঘাতকতার ইতিহাসের এক কালো দিন | _ডা.মুহাম্মাদ মাহতাব হোসাইন মাজেদ

    ইতিহাসের ইতি কথা | মঙ্গলবার, ২২ জুন ২০২১ | পড়া হয়েছে 116 বার

    আজ ২৩ জুন ২০২১ রক্তস্নাত পলাশী দিবস। এবছর পলাশী যুদ্ধের ২৬৪ বছর পূর্ণ হলো। পলাশীর যুদ্ধ নিয়ে আবেগনির্ভর রচনা অনেক হয়েছে। আবেগবর্জিত ও বস্তুনিষ্ঠ রচনার পরিমাণ তুলনামূলক কম। যুদ্ধটি ছিল সংক্ষিপ্ত মাত্র নয় ঘন্টার। সকাল আটটা থেকে বিকাল পাচঁটা পর্যন্ত। তাও আবার জয়-পরাজয় নির্ধারিত হয়েছিল শেষ দুই ঘন্টায়। এ সময়ে ক্লাইভের মাত্র তিন হাজার সৈন্য নবাবের প্রায় ৫০ হাজার সৈন্যকে আতর্কিত আক্রমণে কাবু করেছিল। এই ছোট যুদ্ধটির তাৎক্ষণিক ও সুদূরপ্রসারী ...বিস্তারিত

    আজ ২৩ জুন ২০২১ রক্তস্নাত পলাশী দিবস। এবছর পলাশী যুদ্ধের ২৬৪ বছর পূর্ণ হলো। পলাশীর যুদ্ধ নিয়ে আবেগনির্ভর রচনা অনেক হয়েছে। আবেগবর্জিত ও বস্তুনিষ্ঠ রচনার পরিমাণ তুলনামূলক কম। যুদ্ধটি ছিল সংক্ষিপ্ত মাত্র নয় ঘন্টার। সকাল আটটা থেকে বিকাল পাচঁটা পর্যন্ত। তাও আবার জয়-পরাজয় নির্ধারিত হয়েছিল শেষ দুই ঘন্টায়। এ সময়ে ...বিস্তারিত

    আজ ২৩ জুন ২০২১ রক্তস্নাত পলাশী দিবস। এবছর পলাশী যুদ্ধের ২৬৪ বছর পূর্ণ হলো। পলাশীর যুদ্ধ নিয়ে আবেগনির্ভর রচনা অনেক ...বিস্তারিত

    আজ ১৭ রমজান, ঐতিহাসিক বদর দিবস

    লেখক : সাইফুল ইসলাম তাওহিদ | শুক্রবার, ৩০ এপ্রিল ২০২১ | পড়া হয়েছে 199 বার

    ১৭ রমজান। ঐতিহাসিক বদর দিবস। ৬২৪ খ্রিস্টাব্দে তথা দ্বিতীয় হিজরির ১৭ রমজানে বদর প্রান্তরে সংগঠিত হয় ঐতিহাসিক যুদ্ধ। প্রতিপক্ষ ছিল মক্কার মুশরিক ও মদিনার মুসলিম। এতে মুসলমানদের সেনা সংখ্যা ছিল মাত্র ৩১৩। এই যুদ্ধে মুসলমানরা সংখ্যায় কম হয়েও কাফিরদের বিশাল বাহিনীর ওপর বিজয় লাভ করেছে। কোরআন কারিমে এই যুদ্ধকে সত্য-মিথ্যার মধ্যে পার্থক্যকারী যুদ্ধ বলে অভিহিত করা হয়েছে। বদর যুদ্ধ থেকে শিক্ষা: ইসলামের ইতিহাসে এই যুদ্ধের অসামান্য গুরুত্ব রয়েছে। নিম্নে এই ...বিস্তারিত

    ১৭ রমজান। ঐতিহাসিক বদর দিবস। ৬২৪ খ্রিস্টাব্দে তথা দ্বিতীয় হিজরির ১৭ রমজানে বদর প্রান্তরে সংগঠিত হয় ঐতিহাসিক যুদ্ধ। প্রতিপক্ষ ছিল মক্কার মুশরিক ও মদিনার মুসলিম। এতে মুসলমানদের সেনা সংখ্যা ছিল মাত্র ৩১৩। এই যুদ্ধে মুসলমানরা সংখ্যায় কম হয়েও কাফিরদের বিশাল বাহিনীর ওপর বিজয় লাভ করেছে। কোরআন কারিমে এই যুদ্ধকে ...বিস্তারিত

    ১৭ রমজান। ঐতিহাসিক বদর দিবস। ৬২৪ খ্রিস্টাব্দে তথা দ্বিতীয় হিজরির ১৭ রমজানে বদর প্রান্তরে সংগঠিত হয় ঐতিহাসিক যুদ্ধ। প্রতিপক্ষ ...বিস্তারিত

    যাঁদের দানে সমৃদ্ধ হচ্ছে ব্রাহ্মণবাড়িয়া জাদুঘর [পর্ব-২]

    এস এম শাহনূর | বৃহস্পতিবার, ০৮ এপ্রিল ২০২১ | পড়া হয়েছে 296 বার

    ব্রাহ্মণবাড়িয়ার স্বনামধন্য জেলা প্রশাসক জনাব হায়াত-উদ-দৌলা' খাঁনের আন্তরিকতা ও অনুমোদনক্রমে শহরের দক্ষিণ মোড়াইলের এ গফুর রোডের পশ্চিম প্রান্তে (সহকারী কমিশনার সদর) সাবেক ভূমি অফিসটিকে ব্রাহ্মণবাড়িয়া জাদুঘরের স্থান হিসাবে নির্ধারণ করা হয়েছে। ৬৫ শতক জমির উপর প্রাথমিকভাবে ৫ কক্ষ বিশিষ্ট কাচারী অফিসটিকে জাদুঘরে রূপ দেওয়ার জন্য জেলা প্রশাসনের সার্বিক তত্বাবধানে জাদুঘর বিষয়ে বিশেষজ্ঞ টিমের দিকনির্দেশনায় ফার্নিশিং ও ডেকোরেশনের কাজ চলছে। ব্রাহ্মণবাড়িয়া জাদুঘরের স্বপ্নদ্রষ্টা শিক্ষার কারিগর, লেখক ও লোকজ সংস্কৃতির গবেষক জহিরুল ...বিস্তারিত

    ব্রাহ্মণবাড়িয়ার স্বনামধন্য জেলা প্রশাসক জনাব হায়াত-উদ-দৌলা' খাঁনের আন্তরিকতা ও অনুমোদনক্রমে শহরের দক্ষিণ মোড়াইলের এ গফুর রোডের পশ্চিম প্রান্তে (সহকারী কমিশনার সদর) সাবেক ভূমি অফিসটিকে ব্রাহ্মণবাড়িয়া জাদুঘরের স্থান হিসাবে নির্ধারণ করা হয়েছে। ৬৫ শতক জমির উপর প্রাথমিকভাবে ৫ কক্ষ বিশিষ্ট কাচারী অফিসটিকে জাদুঘরে রূপ দেওয়ার জন্য জেলা প্রশাসনের সার্বিক তত্বাবধানে জাদুঘর ...বিস্তারিত

    ব্রাহ্মণবাড়িয়ার স্বনামধন্য জেলা প্রশাসক জনাব হায়াত-উদ-দৌলা' খাঁনের আন্তরিকতা ও অনুমোদনক্রমে শহরের দক্ষিণ মোড়াইলের এ গফুর রোডের পশ্চিম প্রান্তে (সহকারী কমিশনার ...বিস্তারিত

    যাঁদের দানে সমৃদ্ধ হচ্ছে ব্রাহ্মণবাড়িয়া জাদুঘর [পর্ব-১]

    | শনিবার, ০৩ এপ্রিল ২০২১ | পড়া হয়েছে 406 বার

    স্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তীকে সামনে রেখে ২০২০ সালের ৮ নভেম্বর থেকে ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা প্রশাসনের সার্বিক তত্ত্বাবধানে ব্রাহ্মণবাড়িয়া জাদুঘরের সজ্জিতকরণের কাজ দ্রুত গতিতে এগিয়েছে। ব্রাহ্মণবাড়িয়া জাদুঘর নিয়ে লিখেছেন এস এম শাহনূর     বাংলাদেশের সাংস্কৃতিক রাজধানী খ্যাত ব্রাহ্মণবাড়িয়া শহরের দক্ষিণ মৌড়াইলে, এ গফুর রোডে আলোর পথে 'ব্রাহ্মণবাড়িয়া জাদুঘর'।অসম্পূর্ণ কাজগুলোকে সম্পন্নকরণে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের ঐকান্তিক ইচ্ছার কমতি নেই।ব্রাহ্মণবাড়িয়া জাদুঘর উদ্বোধনের প্রহর গুণছে আজ। ইতিহাস বিনির্মাণের পথ হচ্ছে প্রশস্ত। এবার শুধুই একটি জাকজমকপূর্ণ আনুষ্ঠানিকতার অপেক্ষা।

    স্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তীকে সামনে রেখে ২০২০ সালের ৮ নভেম্বর থেকে ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা প্রশাসনের সার্বিক তত্ত্বাবধানে ব্রাহ্মণবাড়িয়া জাদুঘরের সজ্জিতকরণের কাজ দ্রুত গতিতে এগিয়েছে। ব্রাহ্মণবাড়িয়া জাদুঘর নিয়ে লিখেছেন এস এম শাহনূর     বাংলাদেশের সাংস্কৃতিক রাজধানী খ্যাত ব্রাহ্মণবাড়িয়া শহরের দক্ষিণ মৌড়াইলে, এ গফুর রোডে আলোর পথে 'ব্রাহ্মণবাড়িয়া জাদুঘর'।অসম্পূর্ণ কাজগুলোকে সম্পন্নকরণে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের ঐকান্তিক ...বিস্তারিত

    স্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তীকে সামনে রেখে ২০২০ সালের ৮ নভেম্বর থেকে ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা প্রশাসনের সার্বিক তত্ত্বাবধানে ব্রাহ্মণবাড়িয়া জাদুঘরের সজ্জিতকরণের কাজ দ্রুত ...বিস্তারিত

    ব্রাহ্মণবাড়িয়া জাদুঘর অপরূপ সাজে সজ্জিত

    লেখক: মোঃ জহিরুল ইসলাম স্বপন | রবিবার, ২১ মার্চ ২০২১ | পড়া হয়েছে 250 বার

    ব্রাহ্মণবাড়িয়া জাদুঘর অপরূপ সাজে সজ্জিত হচ্ছে মুক্তিযুদ্ধ,ইতিহাস- ঐতিহ্য ও সংস্কৃতির সমন্বয়ে। গত ৮ নভেম্বরে ২০২০ থেকে মার্চ২০২১ শেষ পর্যন্ত প্রায় ৪ মাস ২২ দিন।কাজ হযেছে আনুমানিক ২ মাসের বেশি।সজ্জিতকরণ,ভেতরের ডিজাইন,ফটকসহ সার্বিক কাজ।মাঠের কাজও বেশ কষ্টের।মোট কক্ষ ৪ টি।অসাধারণ শিল্পকর্ম।শীতলপাটির ডিজাইন, বাঁশঝাড়,নদীপাড়ে কাশফুল,বিভিন্ন কম্পোজিশন,গ্রন্থাগার,বাগান, মঞ্চ,রিসিপশন কর্নার,নিদর্শন সংরক্ষণ ভিত,স্টোর রুম, উঁচু বৃক্ষরাজি, বিশাল মাঠ সবই আছে।আরও কাজ হবে, হচ্ছে।অবিরাম কাজ চলবে স্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তী,বাকি আর মাত্র ৩ দিন।গত পঞ্চাশ বছর বাঙালি জাতি ...বিস্তারিত

    ব্রাহ্মণবাড়িয়া জাদুঘর অপরূপ সাজে সজ্জিত হচ্ছে মুক্তিযুদ্ধ,ইতিহাস- ঐতিহ্য ও সংস্কৃতির সমন্বয়ে। গত ৮ নভেম্বরে ২০২০ থেকে মার্চ২০২১ শেষ পর্যন্ত প্রায় ৪ মাস ২২ দিন।কাজ হযেছে আনুমানিক ২ মাসের বেশি।সজ্জিতকরণ,ভেতরের ডিজাইন,ফটকসহ সার্বিক কাজ।মাঠের কাজও বেশ কষ্টের।মোট কক্ষ ৪ টি।অসাধারণ শিল্পকর্ম।শীতলপাটির ডিজাইন, বাঁশঝাড়,নদীপাড়ে কাশফুল,বিভিন্ন কম্পোজিশন,গ্রন্থাগার,বাগান, মঞ্চ,রিসিপশন কর্নার,নিদর্শন সংরক্ষণ ভিত,স্টোর রুম, উঁচু ...বিস্তারিত

    ব্রাহ্মণবাড়িয়া জাদুঘর অপরূপ সাজে সজ্জিত হচ্ছে মুক্তিযুদ্ধ,ইতিহাস- ঐতিহ্য ও সংস্কৃতির সমন্বয়ে। গত ৮ নভেম্বরে ২০২০ থেকে মার্চ২০২১ শেষ পর্যন্ত প্রায় ...বিস্তারিত

    কসবা উপজেলার নামকরণের ইতিকথা [] এস এম শাহনূর

    | মঙ্গলবার, ০২ ফেব্রুয়ারি ২০২১ | পড়া হয়েছে 440 বার

    ভারতের ত্রিপুরা রাজ্যের সীমান্ত ঘেঁষে রঘুনন্দন পাহাড়ের কোলে ঐতিহাসিক জনপদ কসবার অবস্থান।আরবী কস্বাহ্ থেকে ফার্সি কসবা শব্দের উদ্ভব।গ্রামের চেয়ে বড় কিন্তু শহরের চেয়ে ছোট বসতি বা সমৃদ্ধ গ্রাম বোঝাতে এক সময় কসবা শব্দ ব্যবহৃত হয়েছে। কসবা ছিল সুলতানি আমলের উপবিভাগীয় প্রশাসনিক কেন্দ্র। প্রশাসনিক উপ-বিভাগগুলোর মধ্যে ইকলিম, ইকতা, মুকতা, ইরতা, সোয়ার ও কসবা নামের অস্তিত্ব পাওয়া যায়।সুলতানি আমলের ‘কসবা’ কে জেলা হিসেবে চিহ্নিত করা যায়। কসবার দায়িত্বে ছিলেন একজন প্রশাসনিক কর্মকর্তা, একজন ...বিস্তারিত

    ভারতের ত্রিপুরা রাজ্যের সীমান্ত ঘেঁষে রঘুনন্দন পাহাড়ের কোলে ঐতিহাসিক জনপদ কসবার অবস্থান।আরবী কস্বাহ্ থেকে ফার্সি কসবা শব্দের উদ্ভব।গ্রামের চেয়ে বড় কিন্তু শহরের চেয়ে ছোট বসতি বা সমৃদ্ধ গ্রাম বোঝাতে এক সময় কসবা শব্দ ব্যবহৃত হয়েছে। কসবা ছিল সুলতানি আমলের উপবিভাগীয় প্রশাসনিক কেন্দ্র। প্রশাসনিক উপ-বিভাগগুলোর মধ্যে ইকলিম, ইকতা, মুকতা, ইরতা, সোয়ার ও ...বিস্তারিত

    ভারতের ত্রিপুরা রাজ্যের সীমান্ত ঘেঁষে রঘুনন্দন পাহাড়ের কোলে ঐতিহাসিক জনপদ কসবার অবস্থান।আরবী কস্বাহ্ থেকে ফার্সি কসবা শব্দের উদ্ভব।গ্রামের চেয়ে বড় ...বিস্তারিত

    রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের স্মৃতিধন্য সিলেট: এস এম শাহনূর

    | বৃহস্পতিবার, ১৯ নভেম্বর ২০২০ | পড়া হয়েছে 491 বার

    ১৯১৩ সালে বাংলা ভাষায় সাহিত্যে নোবেল পুরস্কার বিজয়ী বিস্ময়কর প্রতিভা রবীন্দ্রনাথ।কবির ভাষায় ‘আমাদের হৃদয়ে রবীন্দ্রনাথ চেতনায় নজরুল’।

    ‘মমতাবিহীন কালস্রোতে বাঙলার রাষ্ট্রসীমা হোতে নির্বাসিতা তুমি সুন্দরী শ্রীভূমি। ভারতী আপন পুণ্যহাতে বাঙালীর হৃদয়ের সাথে বাণীমাল্য দিয়া বাঁধে তব হিয়া। সে বাঁধনে চিরদিন তরে তব কাছে বাঙলার আশীর্বাদ গাঁথা হয়ে আছে।’
    [রবীন্দ্রনাথের সিলেট ভ্রমণের স্মারক গ্রন্থ, ১৯৪১ সালে প্রকাশিত, ‘কবি প্রণাম’-এ সিলেট সম্পর্কে রবীন্দ্রনাথের স্বহস্তে লিখিত এবং ‘রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর’ স্বাক্ষরিত, কিন্তু তারিখবিহীন উপরোক্ত কবিতাটি পাওয়া যায়। ...বিস্তারিত

    ১৯১৩ সালে বাংলা ভাষায় সাহিত্যে নোবেল পুরস্কার বিজয়ী বিস্ময়কর প্রতিভা রবীন্দ্রনাথ।কবির ভাষায় ‘আমাদের হৃদয়ে রবীন্দ্রনাথ চেতনায় নজরুল’।

    ‘মমতাবিহীন কালস্রোতে বাঙলার রাষ্ট্রসীমা হোতে নির্বাসিতা তুমি সুন্দরী শ্রীভূমি। ভারতী আপন পুণ্যহাতে বাঙালীর হৃদয়ের সাথে বাণীমাল্য দিয়া বাঁধে তব হিয়া। সে বাঁধনে চিরদিন তরে তব কাছে বাঙলার আশীর্বাদ গাঁথা হয়ে আছে।’
    [রবীন্দ্রনাথের সিলেট ভ্রমণের স্মারক গ্রন্থ, ...বিস্তারিত

    ১৯১৩ সালে বাংলা ভাষায় সাহিত্যে নোবেল পুরস্কার বিজয়ী বিস্ময়কর প্রতিভা রবীন্দ্রনাথ।কবির ভাষায় ‘আমাদের হৃদয়ে রবীন্দ্রনাথ চেতনায় নজরুল’।

    ‘মমতাবিহীন কালস্রোতে বাঙলার রাষ্ট্রসীমা হোতে নির্বাসিতা ...বিস্তারিত

    আর্কাইভ

    শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
     
    ১০১১১২১৩১৪১৫
    ১৬১৭১৮১৯২০২১২২
    ২৩২৪২৫২৬২৭২৮২৯
    ৩০৩১  
  • ফেসবুকে আওয়ারকণ্ঠ২৪.কম