• শিরোনাম


    ধর্ষণের বিনিময়ে জেলা ছাত্রলীগের সহ-সভাপতির পদ দেন নাদিরাকে

    | ১২ জুলাই ২০১৮ | ৬:১৭ পূর্বাহ্ণ

    ধর্ষণের বিনিময়ে জেলা ছাত্রলীগের সহ-সভাপতির পদ দেন নাদিরাকে

    ৩বছর ধরে ধর্ষিত হবার পর স্ত্রীর মর্যাদা
    চাইতে গিয়ে ঝালকাঠি জেলা আমলিগ নেতা
    ও জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান সরদার
    শাহ-আলমের হাতে নির্যাতিত হয়ে আত্মহত্যার
    চেস্টা চালান জেলা ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি ফারজানা ববি নাদিরা (২৫)।

    এসময় চেয়ারম্যান শাহ-আলমের স্ত্রীও তাকে নির্যাতন করেন। নাদিরা বর্তমানে ঝালকাঠি সদর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।



    বুধবার দুপুরে ঝালকাঠি জেলা পরিষদে নাদিরার উপর এ নির্যাতনের ঘটনা ঘটে। ছাত্রলীগ নেত্রী নাদিরা ঝালকাঠি জেলা পরিষদের ডিজিটাল সেন্টারে কম্পিউটার অপারেটর হিসেবে কাজ করতেন।
    এ সুবাধে জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও আওয়ামী লীগের সভাপতি সরদার মো. শাহ-আলম (৭২) এর সাথে নাদিরার গোপন সম্পর্ক গড়ে ওঠে।

    নাদিরার অভিযোগ, জেলা চেয়ারম্যান শাহ-আলম গত তিন বছর ধরে তাকে স্ত্রীর মত ব্যবহার করে আসছে। তিনি বারবার দাবি জানালেও তাকে স্ত্রীর মর্যাদা দিচ্ছিলো না। সর্বশেষ গত কয়েকদিন ধরে নাদিরা তাকে বিয়ে করে স্ত্রীর মর্যাদা দেয়ার জন্য চাপ দিয়ে আসছিল।

    Facebook Comments

    এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

    আর্কাইভ

    শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
     
    ১০১১১২১৩১৪১৫১৬
    ১৭১৮১৯২০২১২২২৩
    ২৪২৫২৬২৭২৮২৯৩০
    ৩১  
  • ফেসবুকে আওয়ারকণ্ঠ২৪.কম