• শিরোনাম


    টাঙ্গাইলে সৎ মার হাতে ৯ বছরের শিশু খুন

    রিপোর্ট: মো: আ: হামিদ, টাঙ্গাইল জেলা প্রতিনিধি: | ২১ জানুয়ারি ২০২০ | ৬:০৬ অপরাহ্ণ

    টাঙ্গাইলে সৎ মার হাতে ৯ বছরের শিশু খুন

    টাঙ্গাইলের আমিন বাজার এলাকায় শিশু সাইফ উদ্দিনকে (৯) কে তার সৎমা হাত-পা বেঁধে বাসার একটি কক্ষে আটকে রাখেন। ৩০-৪০ মিনিট পর ঘর খুলে দেখতে পান সাইফ বেঁচে নেই। পরে হাত-পা বাঁধা অবস্থাতেই সাইফকে বাথরুমে পানির বালতিতে মুখ ডুবিয়ে রাখেন। পরে ডাকাতির নাটক সাজিয়ে সাইফের বাবাকে ফোন দেন। সাইফ হত্যার সঙ্গে জড়িত থাকার অভিযোগে গ্রেফতার সাইফের সৎ মা সাবরিনা নাহার সিনথি সোমবার (২০ জানুয়ারি) আদালতে দেয়া স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দিতে এ কথা জানিয়েছেন।

    সাইফ উদ্দিন পৌরসভার আমিন বাজার এলাকার সালাহ্ উদ্দিনের ছেলে। সালাহ্ উদ্দিন দীর্ঘদিন যাবৎ আমিন বাজার এলাকায় বাসা ভাড়া করে বসবাস করেন। তাঁর গ্রামের বাড়ি পৌরসভার কাগমারা মেছের মাকের্ট এলাকায়।



    জেলা গোয়েন্দা পুলিশের ওসি শ্যামল কুমার দত্ত জানান, শহরের আমিন বাজার এলাকায় সাইফের বাবা ভাড়া বাসায় থাকতেন। নিহত সাইফের সৎ মা শনিবার রাত আটটার দিকে ফোন করে সাইফের বাবা মো. সালাউদ্দিনকে জানান অজ্ঞাতনামা তিনজন দুস্কৃতিকারী তাদের বাসায় ঢুকে তার ও ছেলের হাত-পা বেধে স্বর্ণালংকার লুট করে নিয়ে গেছে। তারা সাইফকে বাথরুমে পানির বালতিতে ডুবিয়ে রেখে গেছে যাওয়ার সময়। ফোন পেয়ে সাইফের বাবা তার কম্পিউটার সেন্টার থেকে বাসায় গিয়ে ছেলেকে উদ্ধার করে জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে যান। এ সময় ডাক্তার তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

    খবর পেয়ে টাঙ্গাইল সদর থানা পুলিশ ও গোয়েন্দা পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে তদন্ত শুরু করে। সাবরিনা নাহারের ঘটনার বর্ণনা তাদের রহস্যজনক মনে হয়। পরে পুলিশ সাবরিনা নাহার ও তার স্বামী সালাউদ্দিনকে আটক করে।

    জিজ্ঞাসাবাদের এক পর্যায়ে সাবরিনা সাইফকে হাত-পা বেঁধে ঘরে আটকে রাখার এক পর্যায়ে মৃত্যু হয় বলে জানান। পরে তিনি আদালতে জবানবন্দি দিতে রাজি হন।

    Facebook Comments Box

    এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

    আর্কাইভ

    শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
     
    ১০১১১২
    ১৩১৪১৫১৬১৭১৮১৯
    ২০২১২২২৩২৪২৫২৬
    ২৭২৮২৯৩০  
  • ফেসবুকে আওয়ারকণ্ঠ২৪.কম