• শিরোনাম


    কিশোরগঞ্জের তিন উপজেলায় পৃথক বজ্রপাতে শিশুসহ চার জনের মৃত্যু।

    | ০৩ মে ২০১৯ | ৬:৪৬ অপরাহ্ণ

    কিশোরগঞ্জের তিন উপজেলায় পৃথক বজ্রপাতে শিশুসহ চার জনের মৃত্যু।

    আজ শুক্রবার (০৩ মে) দুপুরে মিঠামইন, ইটনা ও পাকুন্দিয়া উপজেলায় এসব বজ্রপাতের ঘটনা ঘটে।

    স্থানীয়রা জানায়, শুক্রবার দুপুরে মিঠামইনে হাওর থেকে গরু আনতে যায় সুমন মিয়া (০৭)। এসময় বৃষ্টির সঙ্গে বজ্রপাত হলে ঘটনাস্থলেই সে মৃত্যু যায়। এছাড়াও তার সঙ্গে থাকা একটি বাছুরও মারা যায়।



    মৃত সুমন মিয়া উপজেলার কেওয়ারজোড় ইউনিয়নের কুড়ারকান্দি গ্রামের এবাদ মিয়ার ছেলে।

    এদিকে, একই সময় উপজেলার বৈরাটি ইউনিয়নের বিরামচর গ্রাম সংলগ্ন হাওরের জমিতে ধান কাটাতে গিয়ে বজ্রপাতে ঘটনাস্থলেই মহিউদ্দিন (২২) নামে এক যুবক মারা যায়। নিহত মহিউদ্দিন উপজেলার বৈরাটি ইউনিয়নের বিরামচর গ্রামের মো. গোলাপ মিয়ার ছেলে।

    মিঠামইন উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান লায়ন মো. মতিউর রহমান বাংলানিউজকে বিষয়টি জানান।

    অপরদিকে, ইটনার ধনপুর ইউনিয়নের কাঠুইর গ্রাম সংলগ্ন হাওরে কৃষি কাজ শেষে বাড়ি ফেরার পথে বজ্রপাতে রুবেল দাস (২৬) নামে এক যুবক মারা যান।

    মৃত রুবেল দাস উপজেলার ধনপুর ইউনিয়নের কাঠুইর গ্রামের রাকেশ দাসের ছেলে।

    ইটনা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ মুর্শেদ জামান বাংলানিউজকে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

    এছাড়াও, কিশোরগঞ্জের পাকুন্দিয়ায় ঘাস কাটতে গিয়ে বজ্রপাতে আসাদ মিয়া (৪৫) নামে এক কৃষকের মৃত্যু হয়েছে।

    উপজেলার সুখিয়া ইউনিয়নের কোষাকান্দা গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

    মৃত আসাদ মিয়া উপজেলার সুখিয়া ইউনিয়নের কোষাকান্দা গ্রামের মৃত আয়েছ আলীর ছেলে।

    পাকুন্দিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ ইলিয়াস বাংলানিউজকে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

    Facebook Comments

    এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

    আর্কাইভ

    শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
     
    ১০১১১২১৩
    ১৪১৫১৬১৭১৮১৯২০
    ২১২২২৩২৪২৫২৬২৭
    ২৮২৯৩০  
  • ফেসবুকে আওয়ারকণ্ঠ২৪.কম