• শিরোনাম


    আখাউড়ায় ইজারাদারদের বিরোদ্ধে ব্যবসায়ীদের অনিয়মের অভিযোগ

    অমিত হাসান অপু, স্টাফ রিপোর্টার | ২৫ এপ্রিল ২০২০ | ৩:৫০ অপরাহ্ণ

    আখাউড়ায় ইজারাদারদের বিরোদ্ধে ব্যবসায়ীদের অনিয়মের অভিযোগ

    ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আখাউড়ায় ইজারাদারের দৌরাত্ম্যে অতিষ্ঠ হয়ে পড়েছে করোনায় ক্ষতিগ্রস্থ অসহায় সবজি ব্যবসায়িরা। স্থানান্তরিত শহীদ স্মৃতি সরকারি কলেজ মাঠের বাজার, ফুটপাত কিংবা পাড়ার সবজি ব্যবসায়িরা কেউ তাদের নিকট থেকে রক্ষা পাচ্ছে না। শুধু তাই নয়, অধিক মুনাফা লাভের আশায় ইজারাদার বড় বাজার বিদ্যুত কেন্দ্রের পাশে নতুন করে সবজির বাজার চালু করেছে। সরেজমিন খোজ নেয়ার সময় এই তথ্য জানাগেছে।

    নিয়মিত সবজি ব্যবসায়ি মো: নজরুল ইসলাম, আসানুল হক সানু ও লিটন মিয়া জানায়, করোনায় সবজি ব্যবসায়িরা চরম দুর্ভোগের মধ্যে পড়েছে। আধাবেলা ব্যবসা করে পেট চালানো দায় তারপর উপর ইজারাদারের দৌরাত্ম্য বেড়েছে। কলেজ মাঠ, ফুটপাত, পাড়া-মহল্লা খুজে খুজে ব্যবসায়িদের নিকট থেকে টাকা আদায় করছে ইজারাদার।



    তারা আরো জানায়, একদিকে আধাবেলা ব্যবসা আর অন্যদিকে সবজি বাজার কলেজ মাঠে স্থানান্তরের পর ব্যবসায় আরো ধস নেমেছে কিন্তু তারপরও ইজারাদারের টাকা মাফ নেই। তারা নিয়মিত এসে ইজারার টাকা তুলে নিচ্ছেন, কেউ দিতে না চাইলে শক্তি প্রয়োগ করে টাকা আদায় করা হচ্ছে।

    খোজ নেয়ার সময় নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক কয়েকজন ব্যবসায়ি আরো জানায়, ইজারাদার আখাউড়া পৌরসভার সড়ক বাজার, লাল বাজার, বড় বাজারের ফুটপাতা থেকে শুরু করে পাড়া মহল্লায় সবজি ব্যবসায়ি খুজে খুজে ইজারার টাকা আদায় করছে। ইজারাদার অধিক মুনাফা লাভের আশায় বড় বাজার পল্লী বিদ্যুত কেন্দ্রের সামনে নতুন কয়েকটি সবজির দোকান গড়ে তুলেছে।

    খোজ নেয়ার সময় আরো কিছু ব্যবসায়ি জানায়, অধিকাংশ সবজি ব্যবসায়ি দরিদ্র পরিবারের আর কিছু আছে নিম্নমধ্যবিত্ত। এই ব্যবসা দিয়েই চলছে তাদের সংসার জীবন। করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে প্রথমে তাদের ব্যবসা অর্ধবেলা করে দেয়া হয়, পরে সামাজিক দুরত্ব বজায় রাখতে সড়ক বাজার থেকে তাদেরকে কলেজ মাঠে স্থানান্তর করা হয়। বাজার স্থানান্তরের পর কিছু লোক কলেজ মাঠে গেলেও সেখানে মানুষ সমাগম কম হওয়ায় আগের মত ব্যবসা নেই। আবার অনেকেই ফুটপাত, বিভিন্ন পাড়া মহল্লায় বসে সবজি বিক্রয় করছেন। ফুটপাত আর পাড়া মহল্লায় যারা ব্যবসা করছেন তারা প্রশাসনের ভ্রাম্যমাণ আদালতের অভিযানের মুখে পড়ে ক্ষতিগ্রস্থ হচ্ছেন আবার ইজারাদার এসে বল প্রয়োগ করে টাকা আদায় করছেন।এই অবস্থায় সবজি ব্যবসায়িরা আখাউড়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও আখাউড়া পৌরসভার মেয়রের দৃষ্টি আকর্ষণ করেছেন।

    সড়ক বাজার ব্যবসায়ি কমিটির সভাপতি হুমায়ুন কবির খোকা জানায়, করোনা পরিস্থিতিতে সবজি ব্যবসায়িদের নিকট থেকে ইজারাদারের টাকা আদায়ের বিষয়টি তিনি জানেন না।

    তিনি আরো জানান, অর্ধবেলা ব্যবসা হওয়ায় সবজি ব্যবসায়িরা চরম দুর্ভোগের মধ্যে রয়েছে। ব্যবসার সময়টা বাড়ানোর জন্য তিনি উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও জেলা প্রশাসকের সঙ্গে কথা বলবেন বলেও জানান।

    এ ব্যাপারে আখাউড়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা তাহমিনা আক্তার রেইনা জানান কাচাবাজার নিয়ে কারো সহযোগীতা পাওয়া যাচ্ছে না। বাজারটি আবারও স্থানান্তর হতে পারে।

    Facebook Comments

    এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

    ০৯ অক্টোবর ২০১৯

    আর্কাইভ

    শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
     
    ১০১১১২
    ১৩১৪১৫১৬১৭১৮১৯
    ২০২১২২২৩২৪২৫২৬
    ২৭২৮  
  • ফেসবুকে আওয়ারকণ্ঠ২৪.কম